জিপি থেকে জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার নিয়ম | GP to GP balance transfer


আসসালামু আলাইকুম বন্ধুরা! আশা করি সবাই ভাল আছেন। আপনারা যারা জিপি (গ্রামীনফোন) সিম ব্যবহারকারী আছেন তাদের জন্যে আজকের এই পোস্টটি খুবই উপকারী হতে যাচ্ছে। আজকের এই পোস্টে আমি আপনাদের জিপি থেকে জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার নিয়ম সম্পর্কে বিস্তারিত জানাব। 

র্তমানে গ্রামীণফোন বাংলাদেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় একটি মোবাইল অপারেটর। এবং আমরা কম বেশি সবাই জিপি সিম ব্যাবহার করেই থাকি। গ্রামীনফোন কোম্পানি তার ব্যবহারকারীদের জন্য বিভিন্ন ধরনের সুযোগ-সুবিধা প্রদান করে থাকে। তবে গ্রামীনফোনের ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার সুবিধাটা খুবই উল্লেখযোগ্য। 

আবার অনেক সময় বিভিন্ন জায়গাতে যাই যেখানে ফ্লেক্সি দেওয়া সম্ভব হয়ে ওঠেনা। অথবা এমন অনেক অবস্থাতেই পড়তে হয় যখন আমাদের এক সিম থেকে অন্য সিমে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার প্রয়োজন পড়ে। 

কিভাবে জিপি সিমের ব্যালেন্স ট্রান্সফার সেবার যোগ্য হবেন। 

হ্যাঁ আপনি ঠিকই শুনেছেন। যে কেও চাইলেই কিন্তু জিপি সিমের ব্যালেন্স ট্রান্সফার সেবাটি গ্রহণ করতে পারবে না। জিপি সিমের ব্যালেন্স ট্রান্সফার সেবার যোগ্য হতে হলে অবশ্যই আপনাকে কিছু শর্ত পূরণ করেতে হবে। 

জিপি টু জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার সেবার শর্তসমূহ: 

  • মাসিক সর্বনিম্ন ৩০০ টাকা রিচার্জ করতে হবে। 
  • প্রতি মাসে সর্বোচ্চ ১০ বার ব্যালেন্স ট্রান্সফার করতে পারবেন। 
  • শুধুমাত্র প্রিপেইড সিম ব্যবহারকারীরাই এই অফারটি গ্রহণ করতে পারবে। 

    জিপি থেকে জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার নিয়ম 

    জিপি থেকে জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার করা খুবই সহজ একটি কাজ। এবং আপনি যদি চান তাহলে এই কাজটি মাই জিপি অ্যাপের মাদ্ধমে অথবা জিপি এর মেনু কোডের মাদ্ধমেও করতে পারেন। 

    আরেকটা কথা, আপনি যদি জিপি সিমের ব্যালেন্স ট্রান্সফার সেবাটি গ্রহণ করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে ব্যালেন্স ট্রান্সফারের জন্যে রেজিস্টার করেতে হবে। 

    তাই আমি যথাক্রমে ব্যালেন্স ট্রান্সফারের জন্যে রেজিস্টার করার পদ্ধতি এবং ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার পদ্ধতি ধাপে ধাপে বর্ণনা করলাম। 

    ব্যাল্যান্স ট্রান্সফার পিনের জন্যে রেজিস্ট্রেশান করার পদ্ধতিঃ 

    • আপনার মোবাইলের ডায়ালার অপশন থেকে *121*1500# ডায়েল করুন। 
    • এবার রেজিস্ট্রেশান করার জন্যে 1 নং অপশনটি সিলেক্ট করুন। 
    • এবার কিছুক্ষণের মধ্যেই এসএমএস এর মাদ্ধমে আপনাকে একটি পিন কোড দেওয়া হবে।
    বিশেষ দ্রষ্টব্য: পরবর্তীতে ব্যবহারের জন্য পিন কোড টি একটি খাতায় লিখে রাখুন।

    জিপি টু জিপি ব্যালেন্স ট্রান্সফার পদ্ধতিঃ 

    • আপনার মোবাইলের ডায়ালার অপশন থেকে *121*1500# ডায়েল করুন। 
    • এবার ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার জন্যে 2 নং অপশনটি সিলেক্ট করুন। 
    • এই ধাপে আপনার যেই নম্বরে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করতে চাচ্ছেন সেটি দিন। 
    • তারপর টাকার পরিমাণটি লিখুন এবং সেন্ড করুন। 
    • সবশেষে মেসেজ এর মাদ্ধমে প্রাপ্ত পিন নম্বরটি দিয়ে নিশ্চিত করুন। 

    উপরোক্ত ধাপগুলি পর পর অনুসরণ করলে কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনাকে একটি কনফার্মেশন মেসেজ এর মাধ্যমে আপনার টাকা ট্রান্সফার হয়েছে কিনা তা জানানো হবে। 

    উপসংহার

    ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার শর্তগুলি পূরণ করলেই উপরোক্ত পদ্ধতি অনুসরণ করে আপনি চাইলেই যেকোনো সময় আপনার একটি জিপি সিম থেকে অন্য জিপি সিমে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করতে পারবেন। 

    তবে জিপি সিমে ব্যালেন্স ট্রান্সফার করার একটা সীমাবদ্ধতা আছে। যেমন আপনি একবারে ১০ টাকা থেকে সর্বোচ্চ ১০০০ টাকা পর্যন্ত ব্যালেন্স প্রতিবার ট্রান্সফার করতে পারবেন এবং মাসিক সর্বোচ্চ ১০,০০০ টাকা পর্যন্ত ট্রান্সফার করতে পারবেন। 

    আশা করি পোস্টটি আপনাদের ভাল লেগেছে। এবং পোস্টটি যদি ভাল লেগে থাকে তাহলে অবশ্যই পোস্টটি আপনার বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করুন। ধন্যবাদ! 

    Comments

    Popular posts from this blog

    shillong teer hit number whatsapp 2023

    বাংলাদেশে মোবাইল ট্যাক্স কত ? বিদেশ থেকে মোবাইল আনার উপায়

    florina gogoi biography age, fother, mother, bf, house, mobille number 2023